1. haornews@gmail.com : admin :
  2. editor@haor24.net : Haor 24 : Haor 24
মঙ্গলবার, ০৫ জুলাই ২০২২, ০৫:৫৬ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
সুনামগঞ্জের দুর্যোগপীড়িতদের পাশে ‘লেখক, শিল্পী, সাংবাদিক ও প্রকাশক’ বৃন্দ সাঁওতাল বিদ্রোহ, নিপীড়িতের মাঝে দ্রোহের অগ্নিস্ফুলিঙ্গ ফের ঊর্ধ্বমুখী করোনা : ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে বিধি-নিষেধ একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধে হবিগঞ্জের শফির প্রাণদণ্ড, তিনজনের আমৃত্যু কারাদণ্ড সুনামগঞ্জে বন্যায় মোট মৃতের অর্ধেকের বেশি দোয়ারাবাজারের বাসিন্দা ‘প্রাথমিকে নিয়োগ হবে আরও ৩০ হাজার শিক্ষক’ ‘দুষ্টু আমলাদের চাতুরির’ কারণে আইনকানুন পরিবর্তন করা যাচ্ছে না পদ্মা সেতু রক্ষার জন্য সবাইকে দায়িত্বশীল হতে হবে : ওবায়দুল কাদের সারা দেশে পশুর হাট বসবে ৪৪০৭টি, পরতে হবে মাস্ক ষড়যন্ত্রের কারণে পদ্মা সেতু নির্মাণে দুই বছর দেরি : প্রধানমন্ত্রী

আব্দুল হাসিম ঢুকাইদে নিয়ে যৎকিঞ্চিত।। শঙ্কর মৈত্র

  • আপডেট টাইম :: মঙ্গলবার, ৩ জুলাই, ২০১৮, ৩.৪৩ পিএম
  • ১৮৯ বার পড়া হয়েছে

৮০র দশকে আমাদের সুনামগঞ্জের হাওরাঞ্চলে কাউকে আব্দুল হাসিম ঢুকাই দে, বললেই ক্ষেপে যেতো। আব্দুল হাসিম বলা নিয়ে মারামারির ঘটনাও ঘটেছে। আমরা তখন স্কুলে পড়ি। মনে আছে কেউ একটু অন্যরকম হলেই বলা হতো, আব্দুল হাসিম। শুনেছি সেটাও নাকি ফুটবল খেলা থেকে উৎপত্তি। আব্দুল হাসিম নামের এক ভালো খেলোয়াড় ছিলো, তার পায়ে বল গেলেই মাঠজুড়ে ধ্বনি ওঠতো,ঢুকাই দে, আব্দুল হাসিম ঢুকাই দে। কিন্তু সেটা পরবর্তিতে নেগেটিভ সেন্সে কেনো ব্যবহার হতো তার কারণ জানতে পারিনা। সে অনেক দিন আগের কথা। এখন সুনামগঞ্জের ভাটি অঞ্চলে আব্দুল হাসিম বলা হয় কী না জানিনা।
তবে এ যুগে আরো বছর চারেক আগে ফুটবল খেলা থেকেই আরেক সংখ্যার উৎপত্তি হয়েছে যা এখন উচ্চারণ করলেই অনেকে ক্ষেপে যায়। কি অদ্ভুত? গত বিশ্বকাপের পর কোমল পানীয় সেভেন আপ বললে একটি দলের সমর্থকরা ক্ষেপে যেতেন। দোকানে গিয়েও এ পানীয়টি পারতপক্ষে খেতে চাইতেন না। আমি এমনও দেখেছি, তরুণ তরুণিরা দলবদ্ধ হয়ে ফাস্টফুড শপে গিয়ে বলেছেন, কে কি খাবে? কেউ বলছে স্প্রাইট কেউ কোক আরেকজন বলছে ব্রাজিল। আমি টাসকি খেয়ে গেলেও দোকানদার দেখলাম ঠিকই সেভেন আপ বের করে দিয়েছে। দোকানদারের কাছে জিজ্ঞেস করে আমাকে এর মাজেজা জানতে হয়েছে।
যাকগা। ভাবছিলাম এবার বিশ্বকাপের পর সেটা অনেকেই হয়তো তেমন করে মনে রাখেনি। আর এটা এমন কোনো বিষয়ওনা। খেলাতেইতো খেয়েছে। যদিও এটা বিশ্ব রেকর্ড। আর এমন রেকর্ড ভাঙ্গুক তারাও হয়তো চায়না। কিন্তু হায় গণেশ! এতো আরেক বিপদ! এখন তো সংখ্যার ৭ ই উচ্চারণ করা যায়না। হয়তো অন্যকোনো প্রসঙ্গেই ৭ দরকার পড়লো। কিন্তু উনারা ৭ বলতে দেবেন না সেভেন বলতে দেবেন না। যেমন আমি বলেছিলাম তোমাদের খেলাটা লাকি সেভেন মাসে হচ্ছে।জয়ের সম্ভাবনা আছে। ওমা! সেভেন কেনো বললাম এ নিয়ে ঘরে তুলকালাম। আমি বললাম ঠিকাছে ৬+১বলি? না তাও হবে না। যোগফল না কি ৭ ই হয়। আমি বললাম তা হলে ৭ ই কি সংখ্যা থেকে ভেনিস করে দিতে হবে? জবাব এলো সুযোগ থাকলে নাকি তাই করা হতো। কড়া ভাবেই বললাম ভুলে যাও এসব। এই ৭ এর সঙ্গে আমাদের আবেগ জড়িত। ৭ মার্চের বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ভাষন এখন বিশ্ব স্বীকৃত। কিন্তু কে শুনে কার কথা। ৭ যেনো তাদের কাছে অভিশপ্ত। আজ ফেবুতে লিখেছিলাম ৭-২=৫। কারো নাম উল্লেখ করিনি। ওমা! প্রতিক্রিয়া দেখি সেখান থেকেই আসছে। আচ্ছা আমরা এখন কি করবো? ৭ বাদ দিয়ে দেবো? জবাব কি ফ্রান্স? ওহ, এখনতো আবার ফ্রান্সও বলা যাবে না! সামনে নাকি এ আতংক আছে।
(লেখকের ফেইসবুক টাইম লাইন থেকে নেওয়া)

Print Friendly, PDF & Email

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
themesbazarhaor24net
© All rights reserved © 2019 haor24.net
Theme Download From ThemesBazar.Com
error: Content is protected !!